Widget by:Baiozid khan
শিরোনাম:

ঢাকা Sat September 22 2018 ,

বগুড়ায় জামায়াতের বিক্ষোভ মিছিল : পুলিশের গুলি বর্ষণ

Published:2013-08-03 12:12:41    

বগুড়া প্রতিনিধি: জামায়াতে ইসলামীর বিক্ষোভ মিছিলে বাধা দেয়াকে কেন্দ্র করে শনিবার সকালে বগুড়া শহরে পুলিশের সাথে জামায়াত-শিবির কর্মীদের ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে।

জামায়াত-শিবির কর্মীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ টিয়ারসেল ও সর্টগানের গুলি ছুঁড়েছে। জামায়াত-শিবির কর্মীরা এসময় ইট-পাটকেল ও ককটেল ছুঁড়ে পাল্টা জবাব দেয়। সংঘর্ষের সময় ইটের আঘাতে এক পুলিশ সদস্য আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। তবে পুলিশ তা অস্বীকার করেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, হাইকোর্টে নিবন্ধন বাতিলের রায়ের প্রতিবাদে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে বগুড়া শহর জামায়াতের উদ্যোগে আজ সকাল সাড়ে ৮টায় শহরের জিরোপয়েন্ট সাতমাথা থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিল শেষে স্টেশন রোডে হকার্স মার্কেটের সামনে সমাবেশ করার সময় পুলিশ আচমকা হামলা চালালে সংঘর্ষ শুরু হয়।

এসময় পুলিশ টিয়ারসেল এবং সর্টগানের গুলি ছুঁড়লে জামায়াত-শিবির কর্মীরা ইট-পাটকেল ও ককটেল ছুঁড়তে থাকে। এসময় এলাকায় আতংক ছড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষ ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার সময় ইটের আঘাতে এক পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে।

এদিকে বগুড়ার সহকারি পুলিশ সুপার (সদর) গাজিউর রহমান জানান, আজ সকালে জামায়াত-শিবির কর্মীরা মিছিল বের করলে পুলিশ সেখানে যায়। এসময় মিছিল থেকে জামায়াত-শিবির কর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ককটেল নিক্ষেপ করলে পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করতে ১২ রাউন্ড সর্ট গানের গুলি ছুঁড়েছে। এখন পর্যন্ত কেউ আহত অথবা গ্রেফতার হয়নি বলে তিনি জানান।

বগুড়া শহর শিবিরের প্রচার সম্পাদক মিজানুর রহমান জানান, পুলিশ বিনা উস্কানিতে শান্তিপূর্ন কর্মসূচিতে হামলা করেছে। সংঘাত এড়াতে খুব সকালে মিছিল করা সত্ত্বেও পুলিশ গায়ে পড়ে সংঘাত সৃষ্টি করছে। পুলিশ বাড়াবাড়ি বন্ধ না করলে পরিস্থিতি তাদের নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যেতে পারে। এদিকে, পুলিশের আইজির বগুড়ায় আগমনের প্রাক্কালে শহরের প্রাণকেন্দ্রে জামায়াত-শিবির কর্মীদের মহড়ায় পুলিশ প্রশাসনে অস্বস্তি বিরাজ করছে। একদিন আগেও পুলিশ জামায়াত-শিবির কর্মীদের বিনা বাধায় মিছিল করার সুযোগ দিলেও একদিন পরেই পুলিশের আক্রমণাত্মক ভূমিকাকে রহস্যজনক বলেই মনে করছেন অনেকে।


বাংলাসংবাদ২৪/আ.ওয়াদুদ/বিএইচ
 

আরও সংবাদ