Widget by:Baiozid khan
শিরোনাম:

ঢাকা Sun September 23 2018 ,

আপেল হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়

Published:2013-12-21 11:32:24    

বাংলাসংবাদ২৪: ফলের মধ্যে আপেল ফলটি আমরা সবাই কম বেশী খেয়ে থাকি। এই ফলটি অবশ্য সবসময় ঘরে এবং সর্বত্র পাওয়া যায় এবং এর চাহিদাও বেশী। আপেল ফলটি যে শুধু মজার তাই নয় এটি একটি রোগ প্রতিরোধকারী ঔষধও বটে।

বয়স্ক ব্যক্তিরা যদি প্রতিদিন একটি করে আপেল খায় তাহলে হৃদরোগ থেকে মুক্তি পেতে পারে সহজেই। আর এই হৃদরোগ থেকে মুক্তি পাওয়া লোকের সংখ্যা দাঁড়াবে আট হাজারে।

নতুন এক গবেষণায় বলা হয়েছে, ৫০ উর্ধ্ব ব্যক্তিরা যদি প্রত্যেক দিন একটি করে আপেল থায় তবে হৃদরোগ ও ষ্ট্রোক করার পরিমান কমে যাবে এবং এই রোগ থেকে মুক্তিপাবে আট হজারেরও বেশী লোক।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা বলেছেন, আপেল ওষুধের মতোই হৃদস্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। তাছাড়া এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াও নেই। সম্প্রতি ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে এ গবেষণা প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়।

গবেষকরা জানান, আপেল খেয়ে ডাক্তার দূরে রাখার এ মন্ত্র বিশেষত পঞ্চাশোর্ধ্বদের জন্যই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ এ বয়সের মানুষেই হার্টঅ্যাটাক কিংবা স্ট্রোকে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেশি। পঞ্চাশোর্ধ্ব মানুষের জন্য কোলেস্টেরল কমানোর ওষুধ কিংবা দিনে একটি আপেল খাওয়ার পরামর্শ দিয়ে গবেষকরা হার্টঅ্যাটাক এবং স্ট্রোকে মৃত্যুর সাধারণ কারণগুলোর ওপর এর প্রভাব বিশ্লেষণ করেছেন।

গবেষনায় দেখা গেছে, ওই পরামর্শ মেনে চলা প্রতি ১০ জনে অন্তত ৭ জনের ক্ষেত্রে ওষুধ সেবনে বাঁচানো সম্ভব ৯ হাজার ৪০০ প্রাণ। আর দিনে একটি আপেলে বাঁচানো সম্ভব ৮ হাজার ৫০০ প্রাণ। হাজার হাজার রোগীর ওপর পরীক্ষামূলক চিকিৎসা এবং পর্যবেক্ষণের মধ্য দিয়ে এ তথ্য বেরিয়ে এসেছে।

এমএস

আরও সংবাদ