Widget by:Baiozid khan
শিরোনাম:

ঢাকা Mon September 24 2018 ,

বঙ্গবন্ধুর প্রেমে বুকে ৮০ হাজার টাকার ট্যাটু

Published:2015-03-17 17:15:50    
ঢাকা: যুবকের নাম খাইরুল বাশার(৩০)। থাকেন ঢাকার খিলক্ষেতে। দুই যমজ সন্তানের জনক। ছোটখাট ব্যবসা করেন। আর নিজেকে দাবী করেন বঙ্গবন্ধু প্রেমিক হিসেবে। আই বুকে এঁকেছেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ট্যাটু। আর এতেই পড়েছেন বিপাকে। তার অভিযোগ অজ্ঞাত ব্যক্তিরা ফেসবুকে তাঁর ট্যাটু দেখে হুমকি দিচ্ছেন। তাই সন্তান ও স্ত্রীকে নিয়ে আতঙ্কে আছেন তিনি। তবে খাইরুল জানান, বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রীর ট্যাটু বুকে আঁকায় তার দুই সন্তান বিশেষ করে মেয়ে ভুমিকাও বেজায় খুশি।
 
ট্যাটু আঁকার অভিজ্ঞতার কথা সাংবাদিকদের জানিয়ে খাইরুল বাশার বলেন, ছয় মাস আগে তিনি তাঁর বুকে বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনার স্থায়ী ট্যাটু এঁকেছেন। জয় নামে তাঁর এক বন্ধু থাইল্যান্ড থেকে ট্যাটু আঁকার প্রশিক্ষণ নিয়ে আসার পর তিনি আগ্রহ দেখালে এঁকে দেন। এতে তাঁর খরচ হয়েছে ৮০ হাজার টাকা। তিনি বলেন,‘ প্রতিটি ট্যাটু আঁকতে লেগেছে পাঁচ ঘন্টা। সুঁই ফুটিয়ে ট্যাটু আঁকার সময় রক্ত বের হয়, ব্যাথা লাগে। আর আঁকার পর স্বাভাবিক পর্যায়ে আসতে লেগেছে ১৫ দিন।
তাঁর কাছে প্রশ্ন ছিল বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর ট্যাটু বুকে কেন এঁকেছেন? তাঁর জবাব,‘ আমি বঙ্গবন্ধুকে ভালবাসি । তাঁর জন্ম না হলে বাংলাদেশ স্বাধীন হত না। আমি স্বাধীন দেশের নাগরিক হতে পারতাম না। আর বঙ্গবন্ধু কন্যা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন সোনার বাংলা গড়ার কাজ করছেন। আমি চাইলে অন্যভাবেও আমার ভালবাসা প্রকাশ করতে পারতাম। তবে ট্যাটু স্থায়ী। এটা কখনো মুছে যাবে না।’ তিনি বলেন ,‘ আমি সরাসরি রাজনীতি করি না। তবে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের দলকে ভালবাসি।
 
এটি তাঁর দৃষ্টি আকর্ষণের কোন কৌশল কী না? প্রশ্ন করলে তিনি জবাবে বলেন,‘ তা আপনি ভাবতে পারেন। তবে সে চিন্তা থেকে আমি এটা করিনি। আমি ভালবাসা থেকে করেছি।’
 
তিনি অভিযোগ করেন, এই ট্যাটু আঁকার পর তিনি তা তাঁর ফেসবুকে দেয়ার পর তাকে নানাভাবে হুমকি দেয়া হচ্ছে। এমনকি মেরে ফেলার হুমকিও দিয়েছে কেউ কেউ। দুই যমজ সন্তান আর স্ত্রী নিয়ে তিনি আতঙ্কে আছেন। বিষয়টি তিনি স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালকেও জানিয়েছেন বলে দাবী করেন।
 
আপনাকে কারা হুমকি দিচ্ছে ? জবাবে বলেন,তিনি বলেন, ‘তাদের পরিচয় আমি জানি না তবে তারা বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনা বিরোধী বলে তাদের কথায় মনে হয়। তারা টেলিফোনে হুককি দেয়।’
 
 
খাইরুল বাসার জানান, তিনি তার দুই হাতে জাতীয় চার নেতার ট্যাটু আঁকবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। আর এরইমধ্যে পিঠে এঁকেছেন স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের ট্যাটু। স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর ট্যাঁটু কেন? প্রশ্ন করলে জবাবে তিনি বলেন,‘ স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আমাকে খুব স্নেহ করেন। তাই তাঁর ট্যাটুও এঁকেছি।’
 
খাইরুল বাসারের গ্রামের বাড়ি জামালপুরের ইসলামপুর। তিনি সরাসরি রাজনীতি না করলেও তার স্ত্রী শাহাতুন আরেফিন সুমি আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত।
 
 
বাংলাসংবাদ২৪/জেএইচ

আরও সংবাদ