Widget by:Baiozid khan
  • Advertisement

জেনেভায় কাল অর্থ প্রতিশ্রুতি সম্মেলন

Published:2017-10-22 23:18:05    

নিজস্ব প্রতিবেদক : 

বিতাড়িত হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের সহায়তার জন্য সোমবার জেনেভায় আন্তর্জাতিক অর্থ প্রতিশ্রুতি সম্মেলনে অনুষ্ঠিত হবে। সহায়তার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ৪৩ কোটি ৪০ লাখ ডলার। রোহিঙ্গা সঙ্কট শুরুর পর থেকে এ পর্যন্ত প্রতিশ্রুতি ও জোগান এসেছে ১০ কোটি ৬০ লাখ ডলার। যা মোট চাহিদার মাত্র ২৪ শতাংশ। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের কাছ থেকে বাকী অর্থের জোগান পাওয়ার জন্য আজকের প্রতিশ্রুতি সম্মেলনকে গুরুত্বপূর্ণ বিবেচনা করা হচ্ছে।

 ইইউরোপীয় ইউনিয়ন ও কুয়েতের উদ্যোগে রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে আগামীকাল জেনেভায় ইউনাইটেড নেশনস অফিস ফর দ্য কো-অর্ডিনেশন অব হিউম্যানিটেরিয়ান এ্যাফেয়ার্স (ওসিএইচএ), দ্য ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেশন (আইওএম) ও ইউএন হাইকমিশনার ফর রিফিউজি (ইউএনএইচসিআর)-এর সহযোগে এই প্রতিশ্রুতি সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।
আজ ইইউ বাংলাদেশের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, এ সম্মেলন হবে বিপর্যয়কর এক মানবিক সংকটে সাড়া দিয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের দায়িত্ব নেয়ার এক গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত।
কমিশনার ফর হিউম্যানিটারিয়ান এইড এন্ড ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট ক্রিস্টোস স্টিলিয়াজিডেজ বলেন, এই উচ্চ পর্যায়ের সম্মেলনের কো-হোস্ট হিসেবে ইইউ সম্মেলনের সফলতার জন্য সকল দাতাকে এ সংকট নিরসনে অবদান রাখার লক্ষ্যে সক্রিয়ভাবে উৎসাহিত করছে।
সম্মেলনের প্রাক্কালে ইইউ হিং¯্রতা বন্ধের অনিবার্যতার কথা পুনর্ব্যক্ত করেছে। এ সঙ্গে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষকে সামরিক অভিযান বন্ধ এবং যারা ঘরবাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে তাদের স্বেচ্ছা প্রত্যাবর্তনে সরকারের জন্য একটি গ্রহণযোগ্য ও বাস্তবসম্মত প্রক্রিয়ার শুরু করতে জাতিসংঘ ও আন্তর্জাতিক এনজিওগুলোসহ মানবিক কর্মীদের পূর্ণ প্রবেশাধিকার নিশ্চিত করার পুনঃআহ্বান জানিয়েছে।
সম্মেলনে রোহিঙ্গা শরণার্থী সংকট নিরসন পরিকল্পনায় ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ১২ লাখ মানুষের সাহায্যে ৪৩৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার সংগ্রহের লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে। যা বর্তমানে প্রয়োজনীয় তহবিলের ২৬ শতাংশ মাত্র।

আরও সংবাদ