Widget by:Baiozid khan
শিরোনাম:

ঢাকা Sun July 22 2018 ,

রাজশাহী রেলস্টেশনের টাকা উদ্ধারঃ তদন্ত কমিটিতে রদবদল

Published:2013-05-01 19:39:31    

রাজশাহীঃ রাজশাহী রেলস্টেশনের প্রধান বুকিং সহকারীর কক্ষ থেকে প্রায় ৯ লক্ষ টাকা গায়েব হওয়ার দুই দিনের মাথায় পরিত্যাক্ত অবস্থায় টাকা উদ্ধার হয়েছে। এছাড়াও চুরি হওয়া টাকার সঙ্গে সম্পৃক্ততা থাকার অভিযোগে তদন্ত কমিটির প্রধান পশ্চিমাঞ্চল রেলের প্রধান বাণিজ্যিক কর্মকর্তা মুরাদ হোসেনকে তদন্ত কমিটি থেকে বাদ দিয়ে পশ্চিমাঞ্চল রেলের প্রধান নিরাপত্তা কর্মকর্তা আমিনুর রশিদকে তদন্ত কমিটির প্রধান করা হয়েছে।

এব্যাপারে রাজশাহী রেলস্টেশন সুত্র জানান, রোববার সকালে স্টেশনের প্রধান বুকিং সহকারীর রুম থেকে পরিত্যাক্ত অবস্থায় টাকাগুলো পাওয়া যায়। স্টেশনের একাধীক কর্মকর্তা কর্মচারী জানান, পশ্চিমাঞ্চল রেলের প্রধান বাণিজ্যিক কর্মকর্তা মুরাদ হোসেন এবং প্রধান বুকিং সহকারী যোগসাজশে টাকা চুরির ঘটনা ঘটে। এনিয়ে জানাজানি হলে এবং বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় লেখালেখি হওযার ফলে বাধ্য হয়ে তারা লোক দেখানো টাকা উদ্ধার দেখায়।

এর আগে ঘটনার দিন থেকে বুকিং অফিসের সকল ঘর ছাড়াও স্টেশনের বিভিন্ন অফিস একাধীকবার খোঁজাখোঁজি করেও টাকা পাওয়া যায়নি। এমনকি র‌্যাব পুলিশসহ রেলের কর্মকর্তা কর্মচারীরা হন্য হয়ে খোঁজেও টাকা উদ্ধার করতে পারেনি। সদ্য সাময়িক বরখাস্ত হওয়া পশ্চিমাঞ্চল রেলের প্রধান বুকিং সহকারী রাব্বেল আলী নিজে এবং অন্যান্য দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের চাপ সৃষ্টি করে টাকা ম্যানেজ করে চুরি হওয়া টাকা উদ্ধার দেখায় বলে জানান রেলের একাধীক কর্মকর্তা কর্মচারী।

এ বাপ্যারে জিআরপি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আলমগীর হোসেন জানান, রেলের টাকা উদ্ধারের ব্যাপারে আমাদের কিছুই জানানো হয়নি।

প্রসঙ্গত, পশ্চিমাঞ্চল রেলের রাজশাহী রেলস্টেশন থেকে শুক্রবার প্রধান বুকিং সহকারীর অফিস থেকে ৮ লাখ ৮৪ হাজার ১২১ টাকা গায়েব হয়ে যায়।


বাংলাসংবাদ২৪/এনডি/বিএইচ