Widget by:Baiozid khan
  • Advertisement

শিবগঞ্জে বসত বাড়িতে দুর্বৃত্তদের হামলা

Published:2013-06-09 21:44:59    

#পিতা ও কন্যাকে কুপিয়ে জখম
# নগদ টাকাসহ মালামাল লুট

শিবগঞ্জ(বগুড়া) প্রতিনিধি : পূর্ব শত্রতার জের ধরে বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার তেঘড়ী গ্রামে স্বশস্ত্র একদল দুর্বৃত্ত গত শনিবার রাতে কাজী মাওলানা আব্দুল মজিদ প্রামাণিকের বাড়িতে হামলা চালায়। এসময় দুর্বৃত্তরা আব্দুল মজিদ ও তার কলেজ পড়ুয়া কন্যা মারুফা খাতুনকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধারালো অস্ত্র ও লোহাড় রড দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে জখম করে।

পরে দুর্বৃত্তের দল ঘরের আলমিরা ভেঙ্গে নগদ ৫ লক্ষ টাকা, ৫ ভরি ওজনের সোনার গহনা ও ম্যারেজ রেজিস্ট্রারের গুরুত্বপূর্ণ কাগজপত্র লুট করে নিয়ে যায়। খবর পেয়ে শিবগঞ্জ থানা পুলিশ রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।
আজ রোববার সন্ধ্যায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত পুলিশ ঘটনার সাথে জড়িত কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, মাওলানা কাজী আব্দুল মজিদের এর একমাত্র কন্যা বগুড়া টিএমএসএস টেকনিক্যাল ইনিসটিটিউট এর ডেন্টাল বিভাগের ছাত্রী মারুফা গত শনিবার কলেজ এর আবাসিক হোস্টেল থেকে বাড়িতে আসে। পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ওই রাতেই একই গ্রামের আব্দুল গফুরের ছেলে রায়হান, রাহেল, আফছার আলীর ছেলে দুলাল, মিঠু, আনোয়ারের ছেলে হেলাল, মৃত মকবুল হোসেন এর ছেলে খলিলসহ একদল ভাড়াটিয়া স্বশস্ত্র দুর্বৃত্ত রাত পৌণে ১১ টার সময় বসত বাড়ির দরজা ও জানালা ভেঙ্গে ঘরের ভিতর প্রবেশ করে মারুফা ও তার পিতা আব্দুল মজিদকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধারালো অস্ত্র, লোহার রড দিয়ে বেদমভাবে মারপিট করতে থাকে। এক পর্যায়ে তারা মারুফার ঘরের আলমিরা ভেঙ্গে উল্লেখিত পরিমান নগদ টাকা, সোনার গহনা ও গুরুত্বপূর্ণ সরকারী কাগজপত্র লুট করে নিয়ে যায়।

এছাড়াও দুর্বৃত্তরা প্রায় দেড় লাখ টাকার মালামাল ভেঙ্গে তছনছ করে। মারুফার মা তার কন্যা ও স্বামীকে বাঁচাতে গেলে রায়হান পিস্তল বের করে গুলি করার ভয় দেখায়। তাদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। বর্তমানে আব্দুল মজিদ ও মারুফা শিবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

শিবগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ফজলুল করিম জানান, ঘটনার পর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। অভিযোগও পেয়েছে, তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।   


বাংলাসংবাদ২৪/খলিলুর রহমান/একে কাব্য

আরও সংবাদ